সোনার খনিতে ধস, নিহত ৭৩

শেয়ার করুন

চাটগাঁ নিউজ ডেস্ক: মালিতে একটি সোনার খনির টানেল ধসে ৭০ জনেরও বেশি শ্রমিক নিহত হয়েছেন। মর্মান্তিক ঘটনাটি গত সপ্তাহে ঘটলেও তা প্রকাশ্যে এসেছে এ সপ্তাহে। বুধবার (২৪ জানুয়ারি) স্থানীয় সূত্রের বরাতে বার্তা সংস্থা এএফপি জানিয়েছে, ওই এলাকায় প্রায়ই এ ধরনের খনি দুর্ঘটনা ঘটে থাকে।

আফ্রিকার অন্যতম শীর্ষ সোনা উত্তোলনকারী দেশ মালি। তা সত্ত্বেও এটি বিশ্বের সবচেয়ে দরিদ্র দেশগুলোর একটি। মালির খনিগুলোতে প্রায়ই মারাত্মক ভূমিধসের ঘটনা দেখা যায়। মূল্যবান এই ধাতু সমৃদ্ধ খনিগুলোর নিয়ন্ত্রণ পেতে বেগ পেতে হয় দেশটির কর্তৃপক্ষকে।

সবশেষ গত শুক্রবার মালির দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলীয় শহর কাঙ্গাবাতে একটি সোনার খনি ধসে কয়েক ডজন শ্রমিক প্রাণ হারিয়েছেন।

খনির কর্মকর্তা ওমর সিদিবে জানান, দুর্ঘটনার সময় খনির ভেতরে ২০০ জনেরও বেশি শ্রমিক কাজ করছিলেন। অনুসন্ধান শেষ হয়েছে। মোট ৭৩টি মরদেহ পাওয়া গেছে।

স্থনীয় কাউন্সিলরও একই সংখ্যক প্রাণহানির কথা জানিয়েছেন।

মালির খনি মন্ত্রণালয় গত মঙ্গলবার এক বিবৃতিতে বেশ কয়েকজন খনি শ্রমিকের মৃত্যুর কথা ঘোষণা করলেও সুনির্দিষ্ট কোনো সংখ্যা উল্লেখ করেনি।

মালির খনিগুলো মূলত বিদেশি সংস্থার নিয়ন্ত্রণাধীন। এগুলোর মধ্যে রয়েছে কানাডার ব্যারিক গোল্ড এবং বি ২ গোল্ড, অস্ট্রেলিয়ার রেজোলিউট মাইনিং, যুক্তরাজ্যের হামিংবার্ড রিসোর্সেস প্রভৃতি। আফ্রিকান দেশটিতে রাজনৈতিক অস্থিরতা সত্ত্বেও বছরের পর বছর ধরে কাজ চালিয়ে যাচ্ছে এসব সংস্থা।

সূত্র: এএফপি, এনডিটিভি

চাটগাঁ নিউজ/এমআর

Scroll to Top