সহিংসতা বৃদ্ধি পেলে ফোর্স বাড়ানো হবে: জেলা প্রশাসক

শেয়ার করুন

চাটগাঁ নিউজ ডেস্ক: চট্টগ্রামের বিভিন্ন স্থানে নির্বাচন ঘিরে সহিংসতার ঘটনা ঘটেছে, সহিংসতা বৃদ্ধি পেলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর অতিরিক্ত ফোর্স মোতায়েন করা হবে বলে জানিয়েছেন রিটার্নিং কর্মকর্তা ও চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসক আবুল বাসার মোহাম্মদ ফখরুজ্জামান।

মঙ্গলবার (২ জানুয়ারি) বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসক।

তিনি বিভিন্ন স্থানে ঘটে যাওয়া সহিংসতার কথা উল্লেখ করে বলেন, ‘চট্টগ্রামের পটিয়া, সাতকানিয়া, বাঁশখালী উপজেলায় প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীদের মধ্যে সহিংসতার ঘটনা ঘটেছে। সন্দ্বীপ ও মীরসরাইয়েও কিছু ঘটনা ঘটেছে। দোষীদের আমরা গ্রেফতার করেছি। নির্বাচন পর্যন্ত যদি এ ধরনের ঘটনা চলমান থাকে, তাহলে অতিরিক্ত ম্যাজিস্ট্রেট, বিজিবি ও সেনাবাহিনী মোতায়েন করা হবে। কোনোভাবেই কেউ নির্বাচনকে প্রভাবিত করতে পারবে না এবং সে ধরনের কিছু করতে দেওয়া হবে না।

রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক আরও বলেন, আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে ঘিরে ব্যাপক প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়েছে। নির্বাচন সুষ্ঠু নিরপেক্ষ এবং শান্তিপূর্ণ করতে সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা কাজ করছেন। এছাড়া ৩ জানুয়ারি থেকে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী ও সন্দ্বীপের জন্য নৌবাহিনী মোতায়েন করা হবে। ৭ জানুয়ারি উৎসবমুখর পরিবেশে ভোট গ্রহণ সম্পন্ন হবে এবং ভোটাররা নির্বিঘ্নে ভোট দিতে কেন্দ্রে যেতে পারবেন।

উল্লেখ্য, আগামী ৭ জানুয়ারি দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে চট্টগ্রাম জেলার ১৬টি সংসদীয় আসনের মধ্যে ১০টি আসনের রিটার্নিং কর্মকর্তার দায়িত্ব সামলাচ্ছেন জেলা প্রশাসক আবুল বাসার মোহাম্মদ ফখরুজ্জামান। আর অপর ৬টি আসনের রিটার্নিং কর্মকর্তার দায়িত্বে রয়েছেন বিভাগীয় কমিশনার তোফায়েল ইসলাম।

Scroll to Top