বিচ্ছিন্ন ঘটনার মধ্য দিয়ে বোয়ালখালীতে ভোট গ্রহণ শেষ

শেয়ার করুন

বোয়ালখালী প্রতিনিধি: দুয়েকটি বিচ্ছিন্ন ঘটনা ছাড়া শান্তিপূর্ণভাবেই শেষ হলো দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নিবার্চনে চট্টগ্রাম ৮ আসনের  নির্বাচন।

রবিবার (৭ জানুয়ারী ) সকাল থেকেই ভোট কেন্দ্রে ভোটারদের উপস্থিতি লক্ষ্য করা গেছে। বিকেল ৪টায় ভোটগ্রহণ শেষ হয়ে এখন চলছে গণনা।

এদিকে,বোয়ালখালী উপজেলার আমুচিয়া ইউনিয়নের অখিল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোট কেন্দ্রে ইউপি সদস্য পংকজ চন্দকে ছুরিঘাত করেছে দুর্বৃত্তরা। পংকজ চন্দ ফুলকপির সমর্থক বলে জানা গেছে।

অন্যদিকে, বোয়ালখালী উপজেলার সারোয়াতলী ইউনিয়নের দুপুর ১২টার দিকে সারোয়াতলী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের  ভোটকেন্দ্রে ইউপি সদস্য সুরেশ চৌধুরীকে মারধর করেছে দুর্বৃত্তরা। এতে তার মাথা ফেটে যায়।সুরেশ চৌধুরী স্বতন্ত্র প্রার্থী বিজয় কুমার চৌধুরী কিষানের সমর্থক বলে জানা গেছে।

চট্টগ্রাম ৮ আসনে প্রার্থী হলেন যারা-স্বতন্ত্র প্রার্থী কেটলি মার্কার সাবেক সিডিএ চেয়ারম্যান আবদুচ ছালাম,জাতীয় পাটির মনোনিত লাঙ্গল প্রতীকে জাপার প্রেসিডিয়ার সদস্য সোলায়মান আলম শেঠ।

বিএনএফের প্রেসিডেন্ট আবুল কালাম আজাদকে,টেলিভিশন প্রতীক, স্বতন্ত্র প্রার্থী সাবেক কাউন্সিলর বিজয় কুমার চৌধুরীকে ফুলকপি প্রতীক, বাংলাদেশ কংগ্রেসের মহিবুর রহমান বুলবুলকে ডাব প্রতীক, তৃণমূল বিএনপির সন্তোষ শর্মাকে সোনালী আঁশ প্রতীকে,  কল্যাণ পার্টির মো. ইলিয়াছকে হাতঘড়ি প্রতীকে, ইসলামিক ফ্রন্টের সৈয়দ মুহাম্মদ ফরিদ উদ্দিনকে চেয়ার প্রতীকে, এপিপি মো. কামাল পাশাকে আম প্রতীকে ও বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্টের আবদুল নবী মোমবাতি প্রতীকে নিবার্চনী মাঠে রয়েছেন।

নির্বাচন কমিশনের তথ্য মতে,বোয়ালখালী পৌরসভা, আটটি ইউনিয়ন ও নগরের পাঁচটি ওয়ার্ড নিয়ে গঠিত চট্টগ্রাম-৮ সংসদীয় আসন। ভোটার সংখ্যা ৫ লাখ ১৭ হাজার ৬৫২ জন। এরমধ্যে পুরুষ ভোটার দুই লাখ ৬৩ হাজার ৫৪৩ জন। মহিলা ভোটার দুই লাখ ৫৪ হাজার ১০৯ জন। ভোটকেন্দ্র ১৯০টি, ভোটকক্ষ ১৪১৪টি।

Scroll to Top