চমেক হাসপাতালে কিডনি ডায়ালাইসিস সেবা বন্ধের সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসলো স্যান্ডর

শেয়ার করুন

সিপ্লাস ডেস্ক: চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে চালু থাকা কিডনি ডায়ালাইসিস সেবা বন্ধের ঘোষণা থেকে সরে এসেছে ডায়ালাইসিস পরিচালনাকারী প্রতিষ্ঠান স্যান্ডর ডায়ালাইসিস সার্ভিস বাংলাদেশ (প্রা.) লিমিটেড।

বুধবার (২১ জুন) সন্ধ্যায় গণমাধ্যমকে এ তথ্য জানিয়েছেন চমেক হাসপাতালের পরিচালক চমেক হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল শামীম আহসান।

তিনি জানান, আজ সন্ধ্যা ৯টায় স্যান্ডর কর্তৃপক্ষ ডায়ালাইসিস সেবা স্থাগিত সংক্রান্ত নোটিশ বাতিল করেছেন এবং আগামীকাল (বৃহস্পতিবার) থেকে পূর্বের ন্যায় ডায়ালাইসিস সেবা কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে।

এর আগে গত ২০ জুন এক নোটিশের মাধ্যমে চমেক হাসপাতালে কিডনি ডায়ালাইসিস সেবা বন্ধের ঘোষণা দেন প্রতিষ্ঠানটি।

নোটিশে বলা হয়, আগামী বৃহস্পতিবার (২২ জুন) থেকে স্যান্ডর ডায়ালাইসিস সার্ভিস সংক্রান্ত সকল কার্যক্রম স্থগিত থাকবে। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালক (অর্থ) কর্তৃক সার্ভিস পেমেন্ট পরিশোধে বারবার অনাকাঙ্ক্ষিত বিলম্ব ও অসহযোগিতার কারণে হঠাৎ করে এ চরম সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য হয়েছি।

চিঠিতে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালক (অর্থ) ফরিদা ইয়াসমিনের নাম ও ফোন নাম্বার উল্লেখ করে সেবা বন্ধ বা চালুর ব্যাপারে যোগাযোগ করতে বলা হয়েছে।

এমনকি এ ধরনের স্বাস্থ্যসেবা নিরবচ্ছিন্নভাবে চালাতে তিনি আন্তরিক নন অভিযোগ করা হয় ওই নোটিশে।

একই নোটিশে স্যান্ডর ম্যানেজারের বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়, ‘ডায়ালাইসিসের মত জরুরি সেবা বন্ধ করার কোন উদ্দেশ্য আমাদের নাই। কিন্তু এমন বিরূপ পরিস্থিতিতে সেবা চালু রাখা কোনভাবেই সম্ভব নয়। চলমান সমস্যার স্থায়ী সমাধান না হওয়া পর্যন্ত সকল রোগীদেরকে বিকল্প ব্যবস্থা রাখার জন্য বিনীতভাবে অনুরোধ করা হলো’।

এর আগে কাঁচামাল সংকটে চলতি বছরের ১৯ জানুয়ারি দুপুরের পর থেকে ডায়ালাইসিস সেবা কার্যক্রম বন্ধ রাখে স্যান্ডর। এছাড়া একই বছরের ৮ জানুয়ারি ডায়ালাইসিস সেবা বন্ধ করা নিয়ে আন্দোলনে নামে রোগীরা।

Scroll to Top