কর্মবিরতিতে চমেক হাসপাতালের শিক্ষানবিশ চিকিৎসকরা

কর্মবিরতি
শেয়ার করুন

চাটগাঁ নিউজ ডেস্ক: মাসিক ভাতা বৃদ্ধি এবং পোস্টগ্রাজুয়েট প্রাইভেট ট্রেইনি চিকিৎসকদের বকেয়াসহ ভাতা পরিশোধের দাবিতে টানা চতুর্থদিনের মতো কর্মবিরতি পালন করছেন চমেক হাসপাতালের শিক্ষানবিশ চিকিৎসকরা।

বুধবার (২৭ মার্চ) সকাল থেকে এ কর্মবিরতি শুরু করেন শিক্ষানবিশ চিকিৎসকরা। এর আগে ২৪ মার্চ থেকে তাদের কর্মসূচি শুরু হয়।

এর আগে ২৪ মার্চ থেকে তাদের কর্মসূচি শুরু হয়। শিক্ষানবিশ চিকিৎসকদের এ আন্দোলন ২৮ মার্চ দুপুর ২টা পর্যন্ত চলবে বলে জানিয়েছেন চমেক হাসপাতাল ইন্টার্ন চিকিৎসক অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক ডা. মুকেশ রঞ্জন দে। তিনি  বলেন, কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে আমাদের কর্মবিরতি চলছে। কাল স্বাস্থ্য মন্ত্রীর সঙ্গে শিক্ষানবিশ চিকিৎসকরা দেখা করবেন। তিনি সম্মত হলে আমাদের কর্মসূচি প্রত্যাহার করা হবে।

‘চিকিৎসকের চেয়ে দালালের ইনকাম বেশি’

 

প্রসঙ্গত, পোস্ট গ্র্যাজুয়েট ট্রেইনি ও ইন্টার্ন চিকিৎসকরা যৌথভাবে ৪টি দাবি দিয়েছেন। এর মধ্যে ইন্টার্ন চিকিৎসকদের বেতন ৩০ হাজার টাকা এবং পোস্ট গ্র্যাজুয়েট প্রাইভেট ট্রেইনি চিকিৎসকদের বেতন বাড়িয়ে ৫০ হাজার টাকা করতে হবে। পোস্ট গ্র্যাজুয়েট ট্রেইনি চিকিৎসকদের (এফসিপিএস, রেসিডেন্ট ও নন রেসিডেন্ট) বকেয়া ভাতা প্রদান করতে হবে। ১২টি প্রাইভেট ইন্সটিটিউটের নন-রেসিডেন্ট ও রেসিডেন্টদের আকস্মিক ভাতা বন্ধের সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করে ভাতা পুনর্বহাল করতে হবে। চিকিৎসক সুরক্ষা আইন প্রণয়ন করতে হবে।

চাটগাঁ নিউজ/এমআর
Scroll to Top