কক্সবাজার শহরে ফের পাহাড় ধসে দুইজনের মৃত্যু

শেয়ার করুন

কক্সবাজার সদর প্রতিনিধি : পর্যটন নগরী কক্সবাজার  পাহাড় ধসের আবার মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে।  টানা ৪/৫ ঘন্টা টানা বৃষ্টি হওয়ার কারণে পাহাড় ধসে দুই নারী শিশুর মৃত্যু হয়েছে।

আজ বৃহস্প্রতিবার (১১ জুলাই) সকাল ৭টার দিকে পৌর শহর এলাকায় পাহাড় ধসের পৃথক ঘটনায় ২ জনের মৃত্যু হয়েছে।

এর আগে বুধবার দিবাগত রাত ৩টা থেকে টানা ভারী বর্ষণ শুরু হলে সকালে পাহাড় ধসে প্রাণহানির ঘটনা ঘটে।

নিহত ২ জন হলেন- শহরের ৬ নং ওয়ার্ডের পূর্ব পল্যান কাটা এলাকায় মোহাম্মদ করিমের স্ত্রী জমিলা বেগম (৩০) ও ৭ নং ওয়ার্ডের সিকদার বাজার এলাকায় সাইফুলের ছেলে মো: হাসানের (১০)।

এর মধ্যে বসতঘরে পাহাড় ধসে জামিলা এবং মাটির দেওয়াল চাপা পড়ে হাসানের মৃত্যু হয়।

নিহত শিশু হাসানের পরিবার জানায়, পাহাড় ধসে ঘরের মাটির দেওয়ালে পড়লে মাটির দেওয়াল সহ আসবাবপত্র পড়ে নিহত শিশু হাসানের গায়ে। ঘটনাস্থল থেকে তাকে মৃত উদ্ধার করে স্থানীয়রা।

নিহত জমিলার স্বামী করিম জাবেল বলেন-সকাল ৬টার দিকে ঘুম থেকে উঠেই নাস্তা খাওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছিলাম স্বপরিবারে,এসময় হঠাৎ কাদা মাটির পাহাড় বসত ঘরে পড়লে চাপা পড়ে আমার স্ত্রী জমিলা। তাকে স্থানীয়দের সহযোগিতায় উদ্ধার করে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

ঘটনার পর পাহাড় ধস এলাকা পরিদর্শন করেছেন কক্সবাজার ফায়ার সার্ভিস।

কক্সবাজার সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. রকিবুজ জামান জানান, নিজেদের বসতঘরে ঘুম থেকে উঠে সবাই নাশতার আয়োজন করছিলেন। এ সময় হঠাৎ পাহাড়ের মাটি বসতঘরে পড়লে চাপা পড়েন গৃহবধূ জমিলা। তাকে উদ্ধার করে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

৭ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ওসমান সরওয়ার টিপু চাঁটগা নিউজকে বলেন, সিকদার বাজার এলাকায় মাটির দেওয়াল চাপা পড়ে ঘুমন্ত অবস্থায় শিশু সাইফুলের মৃত্যু হলেও তাকে হসপিটাল নিয়ে গেলে সদর হাসপাতালের দায়িত্বরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করে।
নিহত সাইফুল ৭ নং ওয়ার্ডের মো: হাসানের ছেলে বলে নিশ্চিত করেছেন তিনি।

চাটগাঁ নিউজ/আছহাব/এসআইএস

Scroll to Top