রাবিপ্রবিতে ছাত্রলীগ নেতার ৬ মাসের নিষেধাজ্ঞা

শেয়ার করুন

রাঙ্গামাটি প্রতিনিধিঃ ছাত্রাবাসের শিক্ষার্থীদের ভয়-ভীতি প্রদর্শন, নিয়ম বহির্ভূতভাবে হলের আসনে ছাত্র তোলা, আপত্তিকর শব্দ ব্যবহারের অভিযোগসহ আরো কয়েকটি অভিযোগে রাঙামাটি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবিপ্রবি) ছাত্রলীগ নেতা আকিব হাসানকে আর্থিক জরিমানাসহ হলে প্রবেশে ছয় মাসের নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে প্রশাসন। এছাড়া আকিবের আরো চার সহযোগী ছাত্রকে সতর্ক করেছে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। তারা সবাই বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের নেতা-কর্মী বলে জানা গেছে।

মঙ্গলবার (৩০ জানুয়ারি) বিকেলে এক নোটিশের মাধ্যমে এই সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রভোস্ট দপ্তর। ছয় মাসের জন্য ছাত্র হলে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা পাওয়া আকিব মাহমুদ হাসান বিশ্ববিদ্যালয়ের ম্যানেজমেন্ট বিভাগের ২০১৬-১৭ সেশনের শিক্ষার্থী। আকিব হাসান রাবিপ্রবি শাখা ছাত্রলীগ নেতা হিসেবে পরিচিত। তবে বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের কোনও কমিটি গঠিত না হলেও একাংশের নেতৃত্ব দিচ্ছেন আকিব হাসান।

প্রভোস্ট দপ্তর থেকে প্রকাশিত নোটিশে উল্লেখ করা হয়, রাবিপ্রবি কর্তৃপক্ষের আবাসিক হল/হোস্টেলে সংক্রান্ত বিধানের ৬.৪৩ ধারা অনুযায়ী রাবিপ্রবি আবাসিক ছাত্র হলে ভয়-ভীতি প্রদর্শন বা হুমকি প্রদান, নিয়মবহির্ভূতভাবে হলের আসনে অন্য ছাত্রকে তোলা, পারস্পরিক সহমর্মিতা, ভ্রাতৃত্ববোধ, সম্প্রীতি বিনষ্ট করে আবাসিক ছাত্র হলের পড়াশোনার পরিবেশ ও শৃঙ্খলাজনিত বিধান লঙ্ঘন করায় আকিব মাহমুদ হাসানকে ১ হাজার টাকা জরিমানা এবং ১ ফেব্রুয়ারি থেকে আগামী ৬ মাসের জন্য আবাসিক ছাত্র হলে প্রবেশ ও অবস্থানের ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞা দেয়া হলো।

সতর্কবার্তা পাওয়া চার শিক্ষার্থী হলেন- বিশ্ববিদ্যালয়ের ম্যানেজমেন্ট বিভাগের মো. রিয়াদ, পাংশু চাকমা, সিএসই বিভাগের মুহাম্মদ আবীর চৌধুরী ও মো. মহিউদ্দিন মুন্না। রাবিপ্রবি হল প্রশাসনের সহকারী প্রভোস্ট সৌরভ দত্ত ও আহমেদ ইমতিয়াজের যৌথ সই করা নোটিশে জানানো হয়েছে, আগামী ৬ মাসের জন্য ছাত্র হলে প্রবেশ ও অবস্থানের ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞার আদেশ লঙ্ঘন করলে পরবর্তীতে কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। এছাড়াও সতর্ক পাওয়া ছাত্ররা এই আদেশ পুনরায় লঙ্ঘন করলে পরবর্তীতে বরাদ্দকৃত আসন বাতিল, আর্থিক জরিমানাসহ অন্যান্য আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

চাটগাঁ নিউজ/এসবিএন

Scroll to Top