কম্বল নিয়ে কথা কাটাকাটি, কলেজ শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা

শেয়ার করুন

চাটগাঁ নিউজ ডেস্কঃ লোহাগাড়ায় মায়ের সাথে অভিমান করে এক কলেজ ছাত্রীর আত্মহত্যার খবর পাওয়া গিয়েছে। লোহাগাড়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ রাশেদুল ইসলাম চাটগাঁ নিউজকে বিষয়টি নিশ্চিত করেন। নিহত ছাত্রীর নাম তাসমিন আকতার (১৭)।

জানা যায়, শনিবার (২০ জানুয়ারি) রাত ৯ টার দিকে কম্বলের বিষয় নিয়ে তাসমিনের সাথে তার মা নুরুন্নাহারের কথা কাটাকাটি হয়। এরপর দিবাগত রাত আনুমানিক ১১টার দিকে নিজের কক্ষের দরজা বন্ধ করে সবজি ক্ষেতে দেওয়ার জন্য রক্ষিত বিষপান করে সে।

লোহাগাড়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ রাশেদুল ইসলাম জানান, বিষপানে শিক্ষার্থীর আত্মহত্যার ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়ে আমরা লাশ উদ্ধার করেছি। এ বিষয়ে বিধি মোতাবেক যথাযথ আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

লোহাগাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক মোহাম্মদ রায়হান উদ্দিন বলেন, রাত আনুমানিক সাড়ে ১১টার দিকে আত্মহত্যার প্রচেষ্টাকারী শিক্ষার্থীকে জরুরি বিভাগে নিয়ে আসা হয়। এরপর তাঁর স্টোমাক ওয়াশ করার পরও অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় তাঁকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার করা হয়।

নিহত তাসমিন উপজেলার বার আউলিয়া বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের একাদশ শ্রেণির ছাত্রী ও চরম্বা ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ড বিবিরবিলা জোড়পুকুর পাড় উত্তর পাড়া এলাকার মৃত আবুল হাসেমের কন্যা। বিষপানের পর তাসমিনের চিৎকার শুনে বাড়ির দরজা ভেঙে তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে আশংকাজনক অবস্থায় কর্তব্যরত চিকিৎসকের পরামর্শে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে নেওয়ার পথে সে মৃত্যুবরণ করে।

চাটগাঁ নিউজ/এসবিএন

Scroll to Top