আরব সাগরে তলিয়ে যাওয়া মন্দিরে পূজা করলেন মোদি

শেয়ার করুন

চাটগাঁ নিউজ ডেস্কঃ আরব সাগরের পানির নিচে তলিয়ে যাওয়া প্রাচীন শহর দ্বারকার দ্বারকাধীশ মন্দিরে পূজা করেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। শত বছর আগে তলিয়ে যাওয়া গুজরাটের উপকূলবর্তী এই শহরটি সনাতন ধর্মাবলম্বীদের ভগবান শ্রীকৃষ্ণের সঙ্গে সংশ্লিষ্টতা রয়েছে বলে ধারণা করা হয়।

রবিবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) তিনি গুজরাটের পাঞ্চকুনি সমুদ্রসৈকতে ডুবন্ত দ্বারকা নগরী দর্শন করে পানির নিচে তলিয়ে যাওয়া দ্বারকাধীশ মন্দিরে পূজা করেন তিনি।

দ্বারকা সবসময়ই পর্যটকদের কাছে অন্যতম আকর্ষণীয় স্থান। দ্বারকার প্রাগৈতিহাসিক শহর আরব সাগরের তলায় তলিয়ে যায়। সনাতনী শাস্ত্রমতে, এই শহরের সঙ্গে শ্রীকৃষ্ণের সম্পর্ক রয়েছে।

এদিনে গুজরাট সফরের প্রথম দিনের শুরুতেই ভেট দ্বারকায় ‘সুর্দশন সেতু’র উদ্বোধন করেন মোদি। এটিই ভারতের দীর্ঘতম কেবল সেতু। তার পর সেখান থেকেই সোজা চলে যান দ্বারকাধীশ মন্দির দর্শনে। পাঞ্চকুনি সমুদ্র সৈকতে পৌঁছেই স্কুবা ডাইভিং করে দ্বারকা নগরীর দর্শন করেন তিনি। সেখানে দ্বারকাধীশ মন্দিরে প্রার্থনাও সারেন তিনি।

ফিরে এসে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম এক্সে তিনি লিখেছেন, পানির নিচে ডুবে যাওয়া দ্বারকা নগরীতে গিয়ে প্রার্থনা করা একটি ঐশ্বরিক অভিজ্ঞতা ছিল। আধ্যাত্মিক অনুভূতি হলো। শাশ্বত ভক্তি এবং প্রাচীন যুগের সঙ্গে সংস্পর্শে আসার অভিজ্ঞতা কখনো ভুলব না। শ্রীকৃষ্ণ নিজের হাতে এই শহর তৈরি করেছিলেন।

চাটগাঁ নিউজ/এসবিএন

Scroll to Top